Today : 05 December, 2020

সুনামগঞ্জের বন্যা পরিস্থিতির আরও অবনতি

উজানের ঢলে সুরমা ও চলতি নদী পানি বেড়ে সদর ও বিশ্বম্ভরপুর উপজেলার ১৫টি গ্রামের মানুষ তৃতীয়বারের মতো বন্যা দুর্গত হয়ে পড়েছে। বানের পানি তাদের ঘরবাড়িতে ঢুকে পড়ায় অসহায় অবস্থায় দিন কাটাচ্ছেন তারা। এসব গ্রামের লোকজন গবাদিপশু নিয়ে বিপাকে পড়েছেন। প্রতিটি বাড়িতে বন্যার পানি উঠে গেছে। পানি উন্নয়ন বোর্ড জানায়, বুধবার সকাল ৯টায় সুরমা নদীর পানি বিপৎসীমার ৩০ সেন্টিমিটার, ছাতক পয়েন্টে ১৬৬ সেন্টিমিটার এবং বিশ্বম্ভরপুর উপজেলার শাক্তিয়ারখলা পয়েন্টে যাদুকাটা নদীর পানি ৭৮ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় ১২০ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করেছে পানি উন্নয়ন বোর্ড। এদিকে সুনামগঞ্জ পৌরসভার নিম্নাঞ্চল নুতনপাড়া, হাজীপাড়া, শান্তিবাগ, মরাটিলা, পশ্চিমবাজার, তেঘরিয়া, বড়পাড়া, সাববাড়িরঘাট, উকিলপাগা, ষোলঘর, নবীনগর, ধোপাখালী, কালিপুর ও ওয়েজখালী মল্লিকপুর বন্যার পানিতে ডুবে আছে। ছাতক উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ গোলাম কবীর জানান, উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে দুর্গত এলাকায় মানবিক সহায়তা কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে।  সুনামগঞ্জ পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. সবিবুর রহমান জানান, পানি ধীর গতিতে কমছে। উজানের ঢল নামা অব্যাহত রয়েছে। বৃষ্টিপাত অব্যাহত থাকলে পরিস্থিতি আরও খারাপ হবে।